খেলাধুলা

অক্সিজেন চেয়ে টুইট করলেন সুরেশ রাইনা, সোনু বললেন ‘১০ মিনিটে পাঠাচ্ছি ভাই!’

সুরেশ রায়নার চাচি করোনাক্রান্ত। ফুসফুসের সংক্রমণ নিয়ে ভর্তি আছেন মীরাটের এক হাসপাতা’লে। ৬৫ বছর বয়সী আত্মীয়ের জন্য অবিলম্বে একটি অক্সিজেন সিলিন্ডারের অনুরোধ জানিয়ে টুইট করেছিলেন চেন্নাই সুপার কিংসের বাঁ-হাতি তারকা ব্যাটসম্যান।

টুইটারে লেখেন, একটি অক্সিজেন সিলিন্ডার দরকার।

তিনি টুইটে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথকে ট্যাগ করেছিলেন। কিন্তু যোগী দেখার আগেই টুইট চোখে পড়ে যায় ভা’রতের ‘রবিনহুড’ সোনু সুদের। রায়নার থেকে বিস্তারিত জেনে নিয়ে সোনু টুইট করেন, “১০ মিনিটে পাঠাচ্ছি ভাই!”

রায়নার অবসরের পর এই সোনুই ভা’রাক্রান্ত হৃদয়ে টুইট করেছিলেন। তিনি লিখেছিলেন, ক্রিকেট আর আগের মতো থাকবে না। আজ রায়নার ত্রাতা হয়ে মাঠে উত্তীর্ণ হলেন সোনু। দেশবাসী এখনই সোনুকে ‘ভা’রতরত্ন’ দেওয়ার দাবি জানাচ্ছেন। যেভাবে গতবছর থেকে তিনি সকলের পাশে সবসময় দাঁড়াচ্ছেন, তা প্রকাশের কোনও ভাষা নেই। করোনা মহামা’রিতে সাধারণ থেকে সেলেব, সকলেই দ্বারস্থ হয়েছেন সোনুর।

সোনু সুদ বলেন, ‘এই কঠিন পরিস্থিতিতে দেশবাসীর সহায়তার জন্য আমি ও আমা’র টিম সব সময় প্রস্তুত। ইন্সপেক্টর সত্য নারায়ণের কাছ থেকে ফোন পাওয়া মাত্রই আমা’র টিম খবরটি যাচাই করে নেয়। তারপর যত দ্রুত সম্ভব সাহায্যে লেগে পড়ে। সারারাত ধরে তারা ছোটাছুটি করেছে। হাসপাতা’লের জন্য অক্সিজেন সিলিন্ডার জোগাড় করেছে। সামান্য দেরি হয়ে গেলে হয়তো বহু পরিবার তাদের প্রিয়জনকে হারিয়ে ফেলত।’

তিনি আরও বলেন, ‘গত রাতে যারা সাহায্যের জন্য এগিয়ে এসেছেন তাদের প্রত্যেককে আমি ধন্যবাদ জানাচ্ছি। আমা’র টিমের প্রতিটা সদস্য যেভাবে সাহায্যের জন্য এগিয়ে এসেছেন, তাতে আমি ভীষণ খুশি। এভাবেই তারা পাশে থাকলে ভবিষ্যতে আরও বহু মানুষের পাশে দাঁড়াতে পারব। বহু মানুষের প্রা’ণ বাঁচবে’।

ব্যাঙ্গালুরুর আরাক হাসপাতা’লে অক্সিজেন সঙ্কটের খবরে সোনুর টিমের পাশাপাশি সাহায্যের জন্য পু’লিশও এগিয়ে এসেছিল। ওই হাসপাতাল থেকে এক রোগীকে অন্য হাসপাতা’লে নিয়ে যাওয়ার জন্য অ্যাম্বুলেন্স পাওয়া যাচ্ছিল না। সেই মুহূর্তে পু’লিশ তাদের গাড়িতে করে ওই রোগীকে হাসপাতাল পৌঁছে দেয়।

সাধ্য মতো করে যাচ্ছেন বলিউডের অ’ভিনেতা। সোনুকে প্রতিদিন কুর্নিশ জানাচ্ছে দেশবাসী। রায়নাও আজ সোনুকে স্যালুট করলেন এই সাহায্যের জন্য।

Back to top button