জেলার খবর

কলেজশিক্ষককে পি’টি’য়ে জে’লে মেয়র, মা’দ’ক মা’ম’লায় গ্রে’প্তা’র ছে’লে

রাজশাহীর বাঘা উপজে’লার আড়ানী পৌরসভা’র আ’লো’চি’ত সেই মেয়র মুক্তার আলীর ছে’লে রাজু আহম্মেদকে মা’দ’ক মা’ম’লায় গ্রে’প্তা’র করা হয়েছে।

মঙ্গলবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে নিজ বাড়ি পিয়াদাপাড়া এলাকা থেকে তাকে গ্রে’প্তা’র করা হয়। বাঘা থা’নার ওসি সাজ্জাদ হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জানা যায়, গত ৬ জুলাই আড়ানী পৌরবাজারে মনোয়ার হোসেন মঞ্জু নামের এক কলেজশিক্ষককে মা’রধর করেন মেয়র মুক্তার। এ নিয়ে ওই রাতেই ভুক্তভোগী শিক্ষক মা’ম’লা করেন। পরে রাত ৩টার দিকে পু’লিশ তার বাড়িতে অ’ভিযান চালিয়ে ৯৪ লাখ টাকা, সই করা চেক, আগ্নেয়াস্ত্র এবং মা’দ’ক উ’দ্ধা’র করে। আ’ট’ক করা হয় তার স্ত্রী’ এবং দুই ভাতিজাকে।

৯ জুলাই ভোরে পাবনার পাকশী এলাকা থেকে মুক্তার আলী ও তার শ্যালক রজন আলীকে গ্রে’প্তা’র করা হয়। এরপর মেয়রের বাড়িতে অ’ভিযান চালানো হলে আবারো এক লাখ ৩২ হাজার টাকা, মা’দ’ক ও দেশীয় অ’স্ত্র উ’দ্ধা’র করা হয়।

এ ঘটনায় স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের উপসচিব ফারুক হোসেন স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে ১২ জুলাই মেয়র মুক্তার আলীকে সাময়িক বরখাস্তের আদেশ দেওয়া হয়। মুক্তার বর্তমানে কারাগারে রয়েছেন।

এ বিষয়ে রাজশাহী জে’লা পু’লিশের মুখপাত্র অ’তিরিক্ত পু’লিশ সুপার ইফতে খায়ের আলম বলেন, গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে রাজশাহী জে’লা পু’লিশের গোয়েন্দা শাখার একটি দল মা’দ’ক মা’ম’লার পলাতক আ’সা’মি রাজু আহম্মেদকে গ্রে’প্তা’র করা হয়েছে। বর্তমানে সে পু’লিশ হেফাজতে রয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের পর তাকে আ’দা’লতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হবে।

Back to top button