জাতীয়

নৌকার কার্যালয় ভাঙচুর, পুড়িয়ে দেওয়া হয় মোটরসাইকেল

ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গী উপজে’লার বড়পলা’শবাড়ী ইউনিয়নে মোটরসাইকেল প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী আমিনুল ই’স’লা’মের নির্বাচনী প্রচারণায় ব্যবহৃত কর্মী-সম’র্থকদের দুটি মোটরসাইকেলে আ’গু’ন দিয়ে পুড়িয়ে দেওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এদিকে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী সাহাবুদ্দিন মিঞার দুটি নির্বাচনী কার্যালয় ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় উপজে’লার বড়পলা’শবাড়ী ইউনিয়নের মোড়ল হাট ও বালিয়া বাজারে এ ঘটনা ঘটে। নৌকা প্রতীক ও মোটরসাইকেল প্রতীকের প্রার্থীদের অ’ভিযোগ প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর সম’র্থকেরা একে অ’পরে এ ঘটনা ঘটিয়েছে।

এ বিষয়ে আমিনুল ই’স’লা’ম বলেন, ‘মোড়লহাটের পাশে নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর বাড়ির পাশ দিয়ে আমা’র ভাতিজা মাহাবুব আলম ও ভাতিজা আপেল আলী গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নির্বাচনী প্রচারে গেলে নৌকা প্রতীকের কর্মী-সম’র্থকদের মা’রধর করে মোটরসাইকেলে আ’গু’ন ধরিয়ে দেন। আ’হত দুজনকে বালিয়াডাঙ্গী হাসপাতা’লে চিকিৎসা দিয়ে গতকাল বুধবার সকালে বাড়িতে নিয়ে এসেছি।’

মাহাবুব আরও বলেন, ‘ভোটারেরা আমাকেই ভোট দিবেন জানতে পেরে এসব বিচ্ছিন্ন ঘটনা ঘটাচ্ছে। এর আগেও দুটি মোটরসাইকেল ভাঙচুর করেছে তাঁরা।’ তবে অ’ভিযোগ অস্বীকার করে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী সাহাবুদ্দিন মিঞা বলেন, ‘বালিয়া বাজার ও মোড়লহাটে দুটি নির্বাচনী প্রচার কার্যালয় ভাঙচুর করেছে মোটরসাইকেল প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী আমিনুল ই’স’লা’মের কর্মী-সম’র্থকেরা।’ বালিয়াডাঙ্গী থা’নার উপপরিদর্শক বাশার বলেন, এ পর্যন্ত কোনো প্রার্থীই থা’নায় লিখিতভাবে কোনো অ’ভিযোগ জমা দেয়নি।

Back to top button