রাজনীতি

তাপসদের দৃষ্টি কি শুধু সানি লিওনদের দিকে, প্রশ্ন নুরুর

সানি লিওন নামে পরিচিত বলিউড অ’ভিনেত্রী কারেনজিৎ কৌর ঢাকায় এসেছেন। অ’ভিনেত্রীর ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজ তা-ই বলছে। শনিবার (১২ মা’র্চ) বিকেল ৫টা ১০ মিনিটের দিকে নিজের ফেসবুকে একটি ছবি শেয়ার করেছেন বলিউড তারকা।

এর কিছুক্ষণ পরই এ নিয়ে মুখ খুললেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নুর লেখেন, গতকাল তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছিলেন সানি লিওনের অনুমতি বাতিল করা হয়েছে। অথচ আজ তিনি বাংলাদেশে!

তিনি আরও লেখেন, আর্ন্তজাতিক পরিসরে এতো গুণী ব্যক্তিত্ব সম্পন্ন নামি দামি শিল্পী থাকতে তাপসদের দৃষ্টি শুধু সানি লিওনদের দিকে? দেশটাকে কোথায় নিয়ে যাচ্ছে তারা? অ’পসংস্কৃতি ও সাংস্কৃতিক আগ্রাসন রুখে দাঁড়ান।

জানা গেছে, শনিবার (১২ মা’র্চ) বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে শাহ’জালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আসেন সানি লিওন। VT-TRI নামের বিশেষ ফ্লাইটে ঢাকায় এসেছেন তিনি। তার সঙ্গে আর সাতজন সঙ্গী এসেছেন।

সংগীতশিল্পী কৌশিক হোসেন তাপসের মে’য়ের বিয়ের অনুষ্ঠানে অংশ নেবেন সানি লিওন। অনুষ্ঠান শেষে ১৩ মা’র্চ সকাল ৯টার ফ্লাইটে মুম্বাইয়ের উদ্দেশে ঢাকা ছাড়বেন তিনি।সানি লিওনের ঢাকায় আসার বিষয়টি সময় নিউজকে নিশ্চিত করেছেন তার পাবলিকেশন্স ম্যানেজার ইব্রাহিম। জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘হ্যাঁ। সানি ঢাকায়। কিন্তু কেন সেটা আমি জানি না।’

এদিকে সেলিম খান প্রযোজিত ‘সোলজার’ সিনেমা’র চিত্রায়ণে অংশ নিতে ঢাকায় আসার কথা ছিল সানি লিওনের। বাংলাদেশে কাজের অনুমতি চাওয়া হয়েছিল সংশ্লিষ্ট দফতরে। নিয়ম মেনে আবেদন করেছিল প্রযোজনা সংস্থা ‘চেয়ারম্যান ফিল্ম সিন্ডিকেট’। ৫ মা’র্চ থেকে ৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বাংলাদেশে থাকার অনুমতি পেয়েছিলেন সানি লিওন। ২ মা’র্চ প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে বিষয়টি জানানো হয়েছিল।

পরে সানি লিওনের ওয়ার্ক পারমিট বাতিল করেছে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়। ৯ মা’র্চ জারি করা এক প্রজ্ঞাপনে তা জানানো হয়। প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, অনিবার্য কারণে অ’ভিনেত্রী করণজিৎ কর ওয়েভা’রের ওয়ার্ক পারমিট বাতিল করা হয়েছে।

শুক্রবার (১১ মা’র্চ) রাজধানীর আগারগাঁওয়ে এক অনুষ্ঠান শেষে তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, পরিচয় গোপন করে বাংলাদেশে আসতে চেয়েছিলেন বলিউড অ’ভিনেত্রী ও প’র্নস্টার সানি লিওন। ভিসা আবেদনে নিজেকে যু’ক্তরাষ্ট্রের নাগরিক হিসেবে পরিচয় দেওয়ায় তার ভিসা বাতিলের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

তিনি বলেন, একটি চলচ্চিত্রের শুটিংয়ে অংশ নিতে ভা’রতীয় দশজন তারকা ভিসার আবেদন করেছিল। পরে যাচাই-বাছাইয়ে সানি লিওনের পরিচয় প্রকাশ পাওয়ায় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয় তার ভিসা বাতিলের সুপারিশ করে।তথ্যমন্ত্রী বলেন, ভিন্ন নামে, মা’র্কিন নাগরিক দেখিয়ে তার অনুমতি নেওয়া হয়েছিল। তিনি যে পরিচয় গো’প’ন করেছেন সেটা অ’প’রা’ধ।

 

Back to top button