জাতীয়

১১ ড্রাম সয়াবিন তেল চু’রির ঘটনায় গ্রে’প্তা’র চার

বাজারে ভোজ্যতেলের দাম যখন ঊর্ধ্বমুখী, তখন শরীয়তপুর সদরের আংগারিয়া বন্দরের দুটি দোকানের সামনে থেকে চু’রি হয়ে যায় ১১টি ড্রামে থাকা সয়াবিন তেল। এ ঘটনায় অ’ভিযান চালিয়ে মোট চারজনকে গ্রে’প্তা’র করেছে পু’লিশ।

মঙ্গলবার (২৯ মা’র্চ) দুপুরে প্রেস ব্রিফিংয়ে বিষয়টি জানান জে’লা পু’লিশ সুপার এসএম আশরাফুজ্জামান।তিনি বলেন, সিসিটিভির ফুটেজ দেখে সদর উপজে’লার চর পাতাং গ্রামের বাসিন্দা শাকিল ব্যাপারীকে শনাক্ত করা হয়। পু’লিশ শাকিলকে গ্রে’প্তা’রের জন্য অ’ভিযানে গেলে জানতে পারে, ৬ মা’র্চ শাকিল একটি চু’রির মা’ম’লায় মাদারীপুর জে’লায় গ্রে’প্তা’র হয়েছে। পরে শাকিলকে দুদিনের রি’মা’ন্ড দেন আ’দা’লত। রি’মা’ন্ডের প্রথম দিনে তেল চু’রির কথা স্বীকার করেন তিনি।

পু’লিশ সুপার আশরাফুজ্জামান আরও বলেন, তার দেওয়া তথ্যে ২৮ মা’র্চ রাতে শরীয়তপুর সদরের কাশাভোগ এলাকার একটি গ্যারেজ থেকে দুলাল খান, স্বপন শেখ ও তুহিন হাওলাদারকে গ্রে’প্তা’র করে পু’লিশ। তাদের কাছ থেকে চু’রি করা তেল বিক্রির ৫ হাজার টাকা, প্যান্ট ও মাস্ক জ’ব্দ করা হয়। অন্য আ’সা’মিদেরও গ্রে’প্তা’রের চেষ্টা চলছে।

গত ৫ মা’র্চ মধ্যরাতে সদরের আংগারিয়া বন্দরের দুটি দোকানের সামনে থেকে ১১টি ড্রামে থাকা সয়াবিন তেল চু’রি হয়ে যায়। ঘটনার পরদিন ব্যবসায়ী আফজাল মোল্লা বাদী হয়ে পালং মডেল থা’নায় একটি মা’ম’লা করেন। পু’লিশ অ’ভিযান চালিয়ে চু’রির সঙ্গে জ’ড়ি’ত চারজনকে গ্রে’প্তা’র করে।

Back to top button