জাতীয়

বিএনপি নেতা পিকুলকে হ’ত্যাচেষ্টার অ’ভিযোগ, ছোরাসহ তরুণ আ’ট’ক

ময়মনসিংহের নান্দাইল পৌরসভা’র সাবেক মেয়র এএফএম আজিজুল ই’স’লা’ম পিকুলকে হ’ত্যাচেষ্টার অ’ভিযোগে মাসুদ খান (২৪) নামে এক যুবককে আ’ট’ক করেছে জনতা। খবর পেয়ে পু’লিশ একটি ছোরাসহ তাকে উ’দ্ধা’র করে থা’নায় নিয়ে যায়। গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে এ ঘটনা ঘটে সাবেক মেয়রের বাড়ির কাছে একটি মা’র্কে’টের সামনে। এ ঘটনায় মা’ম’লার প্রস্তুতি চলছে।

ওই তরুণ পৌরসভা’র কাকচর মহল্লায় মৃ’ত আবু খানে ছে’লে।স্থানীয় সূত্র জানায়, নান্দাইল পৌর বিএনপির ভা’রপ্রাপ্ত সভাপতি ও সাবেক মেয়র এএফএম আজিজুল ই’স’লা’ম পিকুল নান্দাইল পৌরসভা’র পাঁচ নম্বর ওয়ার্ডের চারিআনি পাড়া মহল্লার বাসিন্দা। ওই এলাকাতেই অবস্থিত ইছহাক মা’র্কেট। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর থেকে মা’র্কে’টের সামনে বসে সম’র্থক নিয়ে সময় কা’টাচ্ছিলেন তিনি। এ সময় তিন তরুণ সেখানে এসে তার ওপর হা’ম’লার চেষ্টা করেন বলে অ’ভিযোগ ওঠে। পরে তার লোকজন মাসুদ খান নামে এক তরুণকে ধরে ফেলেন।

বিএনপি নেতার বড়ভাই মো. আনোয়ারুল ই’স’লা’ম চান বলেন, তিনি এ ঘটনা শুনে বাড়ি থেকে মা’র্কে’টে ছুটে যান। ওই তরুণকে জনরোষ থেকে উ’দ্ধা’র করে পু’লিশের হাতে তুলে দেন। এ সময় ওই তরুণ বিএনপির অ’পর এক নেতার নির্দেশেই এ কাজ করতে চেয়েছিল বলে প্রকাশ্যে জানান। এ ঘটনায় তিনি থা’নায় মা’ম’লা করবেন বলে জানান।

থা’না হেফাজতে থাকা মাসুদ খান দাবি করেন, তিনি কারো ওপর হা’ম’লার সাথে জ’ড়ি’ত নন। তিনি বিএনপির অন্য একটি গ্রুপের রাজনীতির সাথে জ’ড়ি’ত। এ কারণে ইছহাক মা’র্কেট চত্বরে আ’ট’ক করার পর মা’রধর করে তার হাতে ছু’রি দিয়ে ফাঁ’সানো হয়েছে।

নান্দাইল মডেল থা’নার ভা’রপ্রাপ্ত কর্মক’র্তা (ওসি) মোহাম্ম’দ মিজানুর রহমান আকন্দ বলেন, ঘটনার খবর পেয়ে ওই অ’ভিযু’ক্তকে আ’ট’ককে থা’নায় আনা হয়েছে। এখন অ’ভিযোগ পেলে ত’দ’ন্ত করে সত্যতা সা’পেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Back to top button