জাতীয়

এক গুদামেই ৪০ হাজার লিটার সয়াবিন তেল মজুদ!

কুষ্টিয়ায় একটি গোডাউনেই পাওয়া গেছে ৪০ হাজার লিটার সয়াবিন তেল। সেই তেল বেশি দামে বিক্রির অ’ভিযোগে ৩০ হাজার টাকা জ’রিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আ’দা’লত।

মঙ্গলবার (১০ মে) দুপুরে শহরের বড় বাজার এলাকায় জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর কুষ্টিয়া জে’লা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক সুচন্দন মন্ডলের নেতৃত্বে এই অ’ভিযান চলে।

সুচন্দন মন্ডল জানান, বড় বাজার এলাকায় মেসার্স মা ফুড প্রোডাক্টস নামের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের গোডাউনে অ’ভিযানকালে ১৯৯টি ড্রামে ৪০ হাজার লিটার সয়াবিন তেল মজুত পাওয়া যায়। এভাবে মজুত রেখে বাজারে বিক্রি না করে কৃত্রিম সংকট সৃষ্টির মাধ্যমে অ’বৈ’ধভাবে অধিক মুনাফার অ’ভিযোগ প্রমাণ পাওয়া যায়। সেই সঙ্গে মজুতদার ব্যবসায়ী স্বপন কুমা’র বিশ্বা’স ও বুদ্ধদেব কুন্ডু যৌথ ভাবে নিজেদের দোষ স্বীকার করায় তাদের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে ৩০ হাজার টাকা জ’রিমানা করা হয়েছে। পরে শহরের পৌর বাজারেও এই বিশেষ অ’ভিযান চালানো হয়।

এসময় সেখানে বোতলজাত তেল নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে বেশি দামে বিক্রির অ’প’রা’ধে মা স্টোরকে ৬ হাজার টাকা এবং বোতলের তেল ঢেলে অধিক মূল্যে বিক্রক্রির অ’প’রা’ধে সবুজ সাথী স্টোরকে ৬ হাজার টাকা জ’রিমানা ও আদায় করা হয়।

জনস্বার্থে এই অ’ভিযান প্রতিনিয়তই চলবে বলে জানান জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর, কুষ্টিয়া জে’লা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক সুচন্দন মন্ডল।

ভ্রাম্যমাণ এই বাজার মনিটরিং ও অ’ভিযানে জে’লা স্যানিটারি ইন্সপেক্টর (ভা’রপ্রাপ্ত) সুলতানা রেবেকা নাসরীন, সিনিয়র কৃষি বিপণন কর্মক’র্তা আব্দুস সালাম তরফদার ও আইন শৃংখলা বাহিনীর সদস্যরা উপস্থিত থেকে সহযোগিতা করেন।

Back to top button