আন্তর্জাতিক

দ্রুত নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করুন

জাতীয় নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করা না হলে সরকারকে কঠিন পরিণতির মুখে পড়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন পা’কিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও পা’কিস্তান তেহরিক-ই ইনসাফ দলের প্রধান ইম’রান খান। সরকারের কাছে দ্রুত সাধারণ নির্বাচন দেয়ার দাবি জানান তিনি। বলেন, নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করা না হলে ই’স’লা’মাবাদ অ’ভিমুখে ‘জনসমুদ্র’ ছুটবে, যা সরকারের জন্যধ্বং,সাত্মক হবে। খবর দ্যা এক্সপ্রেস ট্রিবিউনের।

ই’স’লা’মাবাদে সমাবেশে যাবার আগে গত শুক্রবার ম’র্দান রেলস্টেশনে এক জনসভায় দেয়া ভাষণে ইম’রান খান এ দাবি করেন। ইম’রান বলেন, পা’কিস্তানের মানুষ বিদেশ থেকে আম’দানি করা নতুন এ সরকার চায় না। এ কারণে আম’রা দ্রুত নির্বাচন চাই। তাই খুব শিগগিরই নতুন নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করুন।

আগামী ২০ মের পর যেকোনো সময় এই মা’র্চের ডাক দেবেন বলে জানান ইম’রান খান। পিটিআই চেয়ারম্যান বলেন, তিনি একটি ‘বিপ্লবের’ জন্য জনগণকে ই’স’লা’মাবাদে আসার আহ্বান জানিয়েছেন, যার উদ্দেশ্য হলো পা’কিস্তানের ‘প্রকৃত স্বাধীনতা’।

বর্তমান সরকারকে উদ্দেশ করে তিনি বলেন, এখান থেকে আমি দু’র্নী’তিবাজ–দুর্বৃত্তদের একটি বার্তা দিচ্ছি…অ’ভিযু’ক্তদের আরও শোনা উচিত, দেশের বিষয়ে তোম’রা সিদ্ধান্ত নিতে পারবে না, জনগণই সিদ্ধান্ত নেবে কারা পা’কিস্তান শাসন করবে।’
এসময় পিটিআই সরকারের বি’রু’দ্ধে যু’ক্তরাষ্ট্র ‘ষড়যন্ত্র’ করেছিল বলে আবার অ’ভিযোগ করেন ইম’রান খান। তিনি বলেন, এই ষড়যন্ত্রের সঙ্গে বর্তমান সরকারের ‘মীর সাদিক ও মীর জাফররা’ জ’ড়ি’ত ছিলেন।

পিটিআই চেয়ারম্যান বলেন, যখন তিনি ‘ষড়যন্ত্রের’ বিষয়টি জানতে পারেন, তখন ‘যেসব লোকজন তা ঠেকাতে পারবে’, তাদের কাছে গিয়েছিলেন। তিনি বলেন, ‘আমি তাদের বলেছিলাম, এই ষড়যন্ত্র যদি সফল হয়, তাহলে বর্তমান অবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে আমাদের অর্থনীতি বিপর্যস্ত হয়ে পড়বে।’সাবেক প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাজারে ১ ডলারের বিপরীতে ২০০ পা’কিস্তানি রুপি গিয়ে ঠেকেছে। পুঁজিবাজারে ধস নেমে আসছে। সবকিছুর দাম বাড়ছে।

সংবাদমাধ্যমের উচিত জনগণের কাছে জানতে চাওয়া জিনিসপত্রের দাম কেমন, যেভাবে আমাদের সরকারের সময় সবকিছু নিয়ে প্রশ্ন করা হতো।’
গত ৯ এপ্রিল ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার পর দেশজুড়ে একের পর এক সমাবেশ করছেন ইম’রান খান। এসব সমাবেশে পিটিআই সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করার পেছনে ‘বিদেশি ষড়যন্ত্র’ ছিল বলে দাবি করে আসছেন তিনি। একই সঙ্গে তিন মাসের মধ্যে নতুন নির্বাচন আদায়ের অঙ্গীকারও করেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী।

Back to top button