জাতীয়

দ’ণ্ডিত তারেকের পক্ষে আইনজীবী থাকা নিয়ে দুদকের প্রশ্ন

২০০৭ সালে জরুরি তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে অ’বৈ’ধ সম্পদ অর্জনের মা’ম’লায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার পুত্র তারেক রহমান ও পুত্রবধু ডা. জুবাইদা খান ওরফে জুবাইদা রহমানের রুল শুনানির পিছিয়েছে।

তাদের আইনজীবীর সময় আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে রোববার (২৯ মে) বিচারপতি মো. নজরুল ই’স’লা’ম তালুকদার ও বিচারপতি কাজী মো. ইজারুল হক আকন্দের বেঞ্চ রুল শুনানির জন্য ৫ জুন দিন রেখেছেন।

আ’দা’লতে আবেদনের পক্ষে ছিলেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী এ জে মোহাম্ম’দ আলী। দুদকের পক্ষে ছিলেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী খুরশীদ আলম খান।

পরে খুরশীদ আলম খান জানান, আবেদনকারী পক্ষ শুনানির জন্য সময় চেয়েছেন। এ কারণে শুনানি পিছিয়ে ৫ জুন রোববার দিন রেখেছেন। তবে তিনটি মা’ম’লায় দ’ণ্ডিত পরোয়ানাভুক্ত আ’সা’মি তারেক রহমানের আইনজীবী থাকা নিয়ে আজকে একটি প্রশ্ন তুলেছি। যখন এ মা’ম’লায় রুল জারি হয়েছিল তখন তিনি দ’ণ্ডিত ছিলেন না। এখন তিনি তিন মা’ম’লায় দ’ণ্ডিত। এই অবস্থায় তার পক্ষে তার আইনজীবী উপস্থিত থাকতে পারেন কিনা সেটা হচ্ছে প্রশ্ন। আ’দা’লত বলেছেন-৫ জুন এ বিষয়ে শুনানি হবে।

২০০৭ সালের ২৬ সেপ্টেম্বর ঘোষিত আয়ের বাইরে ৪ কোটি ৮১ লাখ ৫৩ হাজার ৫৬১ টাকার মালিক হওয়া ও সম্পদের তথ্য গো’প’নের অ’ভিযোগে রাজধানীর কাফরুল থা’নায় এ মা’ম’লা করা হয়।

মা’ম’লায় তারেক রহমান, তার স্ত্রী’ ডা. জুবাইদা রহমান ও শাশুড়ি ইকবাল মান্দ বানুকে আ’সা’মি করা হয়। পরে একই বছরে তারেক রহমান ও তার স্ত্রী’ পৃথক রিট আবেদন করেন। রিটে জরুরি আইন ও এ মা’ম’লার বৈধতা চ্যালেঞ্জ করেন। হা’ই’কো’র্ট রুল জারি করে স্থগিতাদেশ দেন।

রুল জারির ১৫ বছর দুদকের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ১৯ এপ্রিল রিট মা’ম’লা হা’ই’কো’র্টের কার্যতালিকায় ওঠে। এরপর হা’ই’কো’র্ট রুল শুনানির জন্য ২০ এপ্রিল (বুধবার) দিন ঠিক করেন। কিন্তু বুধবার তারেক-জুবাইদার পক্ষে সময় চেয়ে আবেদন করা হয়। পরে হা’ই’কো’র্ট শুনানির জন্য ২৯ মে দিন ঠিক করেন।

Back to top button