জাতীয়

৬০ বছরের দ’ণ্ডিত পলাতক আ’সা’মি গ্রে’প্তা’র

চরফ্যাশনের বিভিন্ন থা’নায় মা’দ’ক, চাঁদাবাজি, ডা’কাতি, প্রতারণা ও না’রীধ,, র্ষ, ণসহ একাধিক মা’ম’লায় ৬০ বছরের সাজা’প্রাপ্ত পলাতক আ’সা’মি উপজে’লা যুবলীগের সাবেক সভাপতি মুরাদ হোসেন মুন্নাকে গ্রে’প্তা’র করা হয়েছে।

শনিবার রাজধানীর গু’লিস্তান এলাকায় অ’ভিযান চালিয়ে তাকে গ্রে’প্তা’র করা হয়েছে বলে সোমবার সকালে দুলারহাট থা’নার ওসি মুরাদ হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।গ্রে’প্তা’র মুরাদ হোসেন মুন্না দুলারহাট থা’নার আহাম্ম’দপুর ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের আবুল বাসার চাপরাশির ছে’লে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সাবেক যুবলীগ সভাপতি মুরাদের বি’রু’দ্ধে চরফ্যাশন উপজে’লার বিভিন্ন থা’নায় মা’দ’ক, চাঁদাবাজি, ডা’কাতি, প্রতারণা ও না’রীধ,, র্ষ, ণসহ একাধিক মা’ম’লা হয়। ওই মা’ম’লায় সে দীর্ঘদিন ধরে পলাতক ছিলেন। তার বি’রু’দ্ধে করা এসব মা’ম’লায় দীর্ঘ শুনানির পর মা’ম’লার অ’ভিযোগ সাক্ষ্যপ্রমাণে স’ন্দেহতীতভাবে প্রমাণিত হওয়ায় ২০২১ সালে চরফ্যাশন অ’তিরিক্ত জে’লা ও দায়রা জজ আ’দা’লতের বিচারক মো নুরুল ই’স’লা’ম তাকে বিভিন্ন মা’ম’লায় ৬০ বছরের সশ্রম কারাদ’ণ্ড দেন।

রায় ঘোষণার সময় আ’সা’মি সাবেক যুবলীগ সভাপতি মুরাদ আ’দা’লতে উপস্থিত ছিলেন না। ৬০ বছরের সাজার দ’ণ্ড কাঁধে নিয়ে সাবেক যুবলীগ সভাপতি মুরাদ হোসেন মুন্না ঢাকায় গু’লিস্তান এলাকায় আত্মগো’প’নে ছিলেন। গো’প’ন সংবাদের ভিত্তিতে দুলারহাট থা’না পু’লিশ তাকে গ্রে’প্তা’র করেন।

দুলারহাট থা’নার ওসি মো মোরাদ হোসেন জানান, বিভিন্ন মা’ম’লায় ৬০ বছরের দ’ণ্ডপ্রাপ্ত আ’সা’মি মুরাদ দীর্ঘদিন ঢাকায় আত্মগো’প’নে ছিলেন। গো’প’ন সংবাদের ভিত্তিতে অ’ভিযান চালিয়ে তাকে গ্রে’প্তা’র করে আ’দা’লতে সোপর্দ করা হয়েছে।

Back to top button