জাতীয়

নির্বাচনী স’হিং’সতা: পু’লিশের গু’লিতে শি’শুসহ আ’হত ৩

শরীয়তপুরের জাজিরা উপজে’লার বিলাসপুর ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের ফলাফল ঘোষনার পর দুই ইউপি সদস্য প্রার্থী সং’ঘ’র্ষের ঘটনা ঘটে।

বুধবার (১৫ জুন) ৮নং ওয়ার্ডের রহিম উদ্দিন মালাই মৃধা কান্দি একতা যুব সংঘ কেন্দ্রে বিজয়ী প্রার্থী জাহাঙ্গীর আলম ও পরাজিত প্রার্থী মতিউর রহমান সিকদারের সম’র্থকদের মধ্যে এ ঘটনা ঘটে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনতে পু’লিশ ১২ রাউন্ড সটগানের গু’লি ছোড়ে।
পু’লিশের ছোড়া শর্টগানের গু’লিতে এসময় ইম’রান হোসেন, রুবিনা আক্তার ও তার তিন বছরের কন্যা লামিছা গু’লিবিদ্ধ হয়। স্থানীয়রা তাদের উ’দ্ধা’র করে জাজিরা উপজে’লা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। পরবর্তীতে অবস্থার অবনতি হলে তাদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতা’লে পাঠানো হয়। এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। অ’তিরিক্ত পু’লিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

পু’লিশ ও উপজে’লা নির্বাচন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, বুধবার (১৫ জুন) শরীয়তপুরের জাজিরায় ৬টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। সবগুলো ইউপিতেই ইভিএমে ভোট গ্রহন করা হয়েছে। বিকালে বিলা’শপুর ইউপির ৮ নম্বর ওয়ার্ড কেন্দ্রে সদস্য প্রার্থীদের ফলাফল বুঝিয়ে দেন প্রিসাইডিং কর্মক’র্তা শেখ দেলোয়ার হোসেন। এসময় বিজয়ী প্রার্থী জাহাঙ্গীর আলমের সম’র্থকরা মিছিল করতে থাকে। তখনই পরাজিত প্রার্থী মতিউর রহমান সিকদারের সম’র্থকরা তাদের ওপর হা’ম’লা করেন। তখন দুই পক্ষের মধ্যে সং’ঘ’র্ষ বাঁধে। হা’ম’লাকারীরা ভোট কেন্দ্র ভাংচুর করে নির্বাচন পরিচালনার কাজে নিয়োজিতদের অ’ব’রু’দ্ধ করে রাখেন। এসময় কয়েকটি ককটেল বো’মা’র বি’স্ফোরন ঘটায়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনতে কেন্দ্রের নিরাপত্তায় নিয়োজিত পু’লিশ সদস্যরা শর্টগান দিয়ে গু’লি ছোড়ে।

এই ব্যাপারে প্রিসাইডিং কর্মক’র্তা শেখ দেলোয়ার হেসেন বলেন, ফলাফল ঘোষনা করে আম’রা সকল প্রার্থীর রেজাল্টশিট বুঝিয়ে দিচ্ছিলাম। এমন সময় পরাজিত প্রার্থী মতিউর রহমানের সম’র্থকরা হা’ম’লা করেন। তাদের হা’ম’লায় আমাদের কর্মক’র্তারাও কয়েকজন আ’হত হয়েছেন। আমাদের কিছু মালামাল নষ্ট হয়েছে। নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আমাদের উ’দ্ধা’র করেছেন।

বিষয়টি নিয়ে জাজিরা থা’নার ওসি মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, দুই সদস্য প্রার্থীর সম’র্থকদের সং’ঘ’র্ষ থামাতে ও নির্বাচনে দায়িত্বরত কর্মক’র্তাদের নিরাপদ রাখতে পু’লিশ ১২ রাউন্ড ফাকা গু’লি ছুড়ে। তাতে তিন জন আ’হত হওয়ার কথা শুনেছি। তাদের ঢাকায় পাঠানো হয়েছে।

Back to top button