জাতীয়

শিক্ষককে পি’টি’য়ে ইউনিয়ন পরিষদে নেওয়া চেয়ারম্যান গ্রে’প্তা’র

মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটি নিয়ে দ্বন্দ্বের জেরে নাটোর সদর উপজে’লার হয়বতপুর ফাজিল মাদ্রাসার শিক্ষক জাফর বরকতকে মা’রধরের মা’ম’লায় লক্ষ্মীপুর খোলাবাড়ুয়া ইউপির চেয়ারম্যান নূরুজ্জামান কালুকে গ্রে’প্তা’র করেছে পু’লিশ। বৃহস্পতিবার (৪ আগস্ট) তাকে আ’দা’লতে উপস্থিত করা হয়। বিকালে তার জামিন বিষয়ে আদেশ দেবেন অ’তিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট গুলজার রহমান।

সদর থা’নার ওসি নাছিম আহম্মেদ, মা’ম’লার ত’দ’ন্ত কর্মক’র্তা এসআই সঞ্জয় এবং কোর্ট ইন্সপেক্টর নজমূল হকের সঙ্গে কথা বলে এসব তথ্য জানা যায়।

মাদ্রাসা থেকে পি’টি’য়ে শিক্ষককে নেওয়া হলো ইউনিয়ন পরিষদে
সদর থা’নার ওসি নাছিম আহম্মেদ বলেন, বুধবার বিকালে ওই মাদ্রাসার ইংরেজি বিষয়ের সহকারী অধ্যাপক জাফর বরকত মা’রপিট করা হয়। এক পর্যায়ে শিক্ষককে পি’টি’য়ে মাদ্রাসা থেকে ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ে নিয়ে যাওয়া হয়। এ বিষয়ে নি’র্যা’তনের শিকার শিক্ষক ওই চেয়ারম্যান, তার ছে’লে জয় এবং আরও পাঁচ জনসহ মোট সাত জনের নামে এবং অ’জ্ঞা’ত আরও ১০-১৫ জনের বি’রু’দ্ধে মা’ম’লা দায়ের করেন। রাতে অ’ভিযান চালিয়ে ওই চেয়ারম্যানকে গ্রে’প্তা’র করা হয়।

মা’ম’লার ত’দ’ন্ত কর্মক’র্তা এসআই সঞ্জয় জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরের কিছু আগে আ’সা’মিকে কোর্টে চালান দেওয়া হয়। অন্য আ’সা’মিদের গ্রে’প্তা’রে অ’ভিযান চলছে।

কোর্ট ইন্সপেটর নজমূল হক বলেন, অ’তিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট গুলজার রহমানের আ’দা’লতে আ’সা’মিকে হাজিরের পর জামিন আবেদন করেন তার আইনজীবী। বিকালে এ বিষয়ে আদেশ দেবেন আ’দা’লত।

 

Back to top button